মানসিক রোগ, স্বাস্থ্য বিষয়ক ব্লগ

মানসিক রোগের শারীরিক লক্ষণ ও সকল পদ্ধতির ডাক্তারদের বক্তব্য।

মানসিক রোগের সতর্কতামূলক লক্ষণ ও চিহ্ন

মানসিক রোগের ক্ষেত্রে কিছু সতর্কতামূলক লক্ষণ রয়েছে। যেগুলোর উপস্থিতি বর্তমান কিংবা ভবিষ্যতে হতে পারে মানসিক সমস্যার ইঙ্গিত প্রদান করে। লক্ষণগুলো হলো।

সাধারন

  • বিরতীহীন দুশ্চিন্তা
  • সব সময় বিষন্নতায় ভোগা
  • উল্লেখযোগ্য কারণ ব্যতিত মনোনিবেশ করতে না পারা
  • সামঞ্জস্য পূর্ণ কারণ ব্যতিত বিরতীহীনভাবে অসুখী অনুভব।
  • দ্রুত মেজাজ খারাপ হয়ে যাওয়া
  • নিয়মিত ভাবে ঘুম না হওয়া।
  • অস্থিতিশীল মানসিক অবস্থা ।
  • ক্রমাগত ভাবে অন্যদের সাথে মিশতে অনীহা।
  • দৈনন্দিন গতানুগতিক কাজে বাধা আসলে বিরক্ত বোধ করা
  • শিশুরা স্বাভাবিক ভাবে বিরক্ত করলে ক্রোধানুভুতি হওয়া।
  • কোন বাস্তব কারণ ছাড়া ভীতি।
  • শুধু নিজেকে সঠিক এবং অন্যদের ভুল ভাবা।
  • সিদ্ধান্ত গ্রহণে অক্ষমতা
  • দায়িত্ব গ্রহণে অক্ষমতা
  • একই চিন্তা বা কাজ বারবার করা (শুচিবাই),
  • বন্ধুত্ব গড়তে বা তা বজায় রাখতে অক্ষমতা
  • আবেগ সংবরণ করতে অক্ষমতা।
  • অপছন্দনীয় বিষয় বা বাস্তবতা মোকাবেলা করতে অক্ষমতা
  • অতীতের অপ্রীতিকর স্মৃতি ভুলে যেতে অক্ষমতা
  • অতীতের আবেগজনিত ভুল থেকে শিক্ষা নিতে অক্ষমতা
  • সব সময় অজানা আশাংকার মধ্যে থাকা
  • সহজেই মেজাজ বিগড়ে যাওয়া।
  • আত্নহত্যার ইচ্ছা
  • প্রাপ্ত বয়স্কদের ক্ষেত্রে যৌনাকাঙ্খা হ্রাস ও যৌণক্রিয়াজণিত সমস্যা (পুরুষদের ক্ষেত্রে ইরেকটাইল ডিজফাংকশন ও প্রিমেচিউর ইজাকুলেশন, মহিলাদের ক্ষেত্রে সঙ্গমে বেদনানুভব)।
  • কোন দৈহিক কারণ ছাড়াই (পরীক্ষা নিরীক্ষার মাধ্যমে নিশ্চিত) সর্বাঙ্গে কোন স্থানে বেদনা অনুভব।
  • মাদকাশক্তি

 

কিশোর বয়সী

  • সাধারন লক্ষণগুলো বিদ্যমান থাকতে পারে।
  • মাদকাশক্তি
  • নিত্যদিনের স্বাভাবিক কাজ কর্মের সাথে খাপ খাওয়াতে না পারা।
  • খাদ্য গ্রহণ ও ঘুমের অভ্যাসের পরিবর্তন
  • শারীরিক সমস্যার অতিরিক্ত অভিযোেগ
  • প্রকাশ্যে অবাধ্যতা।
  • মোটা হয়ে যাওয়ার অত্যধিক ভীতি।
  • ঋণাত্নক চিন্তাধারা
  • ঘন ঘন রেগে যাওয়া। ইত্যাদি।

 

শিশুদের ক্ষেত্রে

  • বিদ্যালয়ে পারদর্শিতার পরিবর্তন
  • যথাসাধ্য প্রচেষ্টার ফলেও খারাপ ফলাফল।
  • অত্যধিক দুশ্চিন্তা (যেমন- বিছানায় যেতে বা স্কুলে যেতে) *
  • অতিক্রিয়াশীলতা
  • ক্রমাগত দুঃস্বপ্ন দেখা।
  • ক্রমাগত অবাধ্য হওয়া
  • ঘন ঘন মেজাজ খারাপ হওয়া। ইত্যাদি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *